জুমাতুল বিদায়: করোনা থেকে মুক্তির দোয়া

তাজা খবর ডেস্ক :: ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে শুক্রবার (৭ মে) সারাদেশে পবিত্র জুমাতুল বিদা পালিত হয়েছে। নামাজ শেষে মসজিদে মসজিদে বিশেষ মোনাজাতে করোনা মহামারি থেকে মুক্তি চেয়ে দোয়া করেন ইমাম, খতিবসহ ধর্মপ্রাণ মানুষ। এ সময় অনেকে আহাজারি-কান্নায় ভেঙে পড়েন।

রাজধানী ও এর বাইরের মসজিদগুলোতে পবিত্র রমজানের শেষ জুমায় অংশ নিয়েছেন বিপুল সংখ্যক মুসল্লি। ঢাকার অনেক মসজিদেই মুসল্লিদের সারি পাশের সড়কেও ছড়িয়েছে। জুমা শেষে আল্লাহর দরবারে ক্ষমা ও রহমত কামনা করেন মুসল্লিরা।

মসজিদের ইমাম ও খতিবরা করোনার সংক্রমণ থেকে বাংলাদেশসহ সারা বিশ্বের মানুষের সুরক্ষা, অসুস্থদের দ্রুত আরোগ্য লাভ, মহামারি পরিস্থিতির দ্রুত উন্নতি এবং দেশ ও জাতির সার্বিক কল্যাণ কামনা করে নামাজ শেষে বিশেষ মোনাজাত পরিচালনা করেন।

এর আগে মহামারি করোনাভাইরাস থেকে মুক্তি চেয়ে শুক্রবার ‘জুমাতুল বিদা’য় মসজিদে মসজিদে বিশেষ মোনাজাত করার জন্য অনুরোধ করে ধর্ম মন্ত্রণালয়। বৃহস্পতিবার (৬ মে) ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র তথ্য অফিসার মোহাম্মদ আনোয়ার হোসাইনের স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ অনুরোধ জানানো হয়।

এতে বলা হয়, বাংলাদেশসহ সারা বিশ্বে করোনাভাইরাস পরিস্থিতি মহামারি আকার ধারণ করেছে। করোনার সংক্রমণ থেকে বাংলাদেশসহ সারা বিশ্বের মানুষের সুরক্ষা, অসুস্থদের দ্রুত আরোগ্য লাভ, মহামারি পরিস্থিতির দ্রুত উন্নতি এবং দেশ ও জাতির সার্বিক কল্যাণ কামনা করে ২৪ রমজান (৭ মে) পবিত্র জুমাতুল বিদা নামাজ শেষে দেশের সব মসজিদে বিশেষ দোয়ার আয়োজন করতে হবে।

এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য দেশের সব মসজিদের খতিব, ইমাম, মুসল্লি ও মসজিদ কমিটিকে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে অনুরোধ জানানো হয়।

 

সংবাদটি শেয়ার এবং লাইক করুন